আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > সিলেট > বড়লেখায় পাহাড় ধসে মা ও মেয়ের মৃত্যু

বড়লেখায় পাহাড় ধসে মা ও মেয়ের মৃত্যু

বড়লেখায় পাহাড় ধসে মা ও মেয়ের মৃত্যু

প্রতিচ্ছবি মৌলভীবাজার প্রতিবেদন: মৌলভীবাজারের বড়লেখার সদর ইউনিয়নের ডিমাই ওয়ার্ডের বিওসি কেচরিগুল গ্রামে পাহাড়ি টিলা ধসে মা- মেয়ের মৃত্যু হয়েছে। টানা ভারি বর্ষণের প্রভাবে রোববার (১৮ জুন) ভোর সাড়ে ৩ টার দিকে পাহাড়ি টিলা ধসে ঘরের উপর পড়লে তারা মাটি চাপা পড়েন। সকাল সাড়ে ৬ টায় এলাকাবাসী সরিয়ে তাদের লাশ উদ্ধার করেন।

এলাকাবাসী জানায়, শনিবার রাতের টানা বর্ষণ আর আকস্মিক পাহাড়ি ঢলে রাত সাড়ে ৩টায় ডিমাই ওয়ার্ডের বিওসি কেচরিগুল গ্রামের মৃত আব্দুস সাত্তারের বসত ঘরে টিলা ধসে পড়ে। এতে তার স্ত্রী আফিয়া বেগম ও মেয়ে স্কুল ছাত্রী ফাহমিদা বেগম (১৩) মাটি চাপা পড়েন।

রোববার ১৮ জুন সকাল সাড়ে ৬টায় মাটি সরিয়ে এলাকাবাসী নিহত মা-মেয়ের লাশ উদ্ধার করে। বড় ছেলে নানা বাড়িতে থাকায় প্রাণে বেঁচে যায়।

স্থানীয় ইউপি সদস্য সিরাজ উদ্দিন জানান, শনিবার সারা দিন ও রাত টানা ভারি বর্ষণ হয়।

এছাড়া আকস্মিক পাহাড়ি ঢলে এলাকার রাস্তাঘাট ও বাড়ি ঘর তলিয়ে গেছে। ডিমাই এলাকায় অসংখ্য ঘর ধসে পড়েছে। শতাধিক ঘরবাড়ি ধসে পড়ার হুমকিতে রয়েছ। এছাড়াও বোবারথল, তেরাদরম, কাশেমনগর, বিওসি কেয়রিগুলসহ বিভিন্ন দুর্গম এলাকায় টিলা ধসে রাস্তা-ঘাট ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। এছাড়াও এসব এলাকার শতাধিক ঘর-বাড়ি ধসে পড়ার আশংকা রয়েছে।

বড়লেখা উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন ও ওসি মোহাম্মদ শহিদুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সদর ইউনিয়নের ডিমাই ওয়ার্ডের বিওসি কেটিরগুল গ্রামে টিলার পাদদেশে বেশ কয়েক বছর ধরে তারা বসবাস করে আসছিলেন। কয়েকদিন ধরে টানা ভারি বর্ষণের প্রভাবে আজ ভোরের দিকে হঠাৎ টিলার মাটি ধসে পড়ে মাটি চাপায় মা-মেয়ের মৃত্যু হয়। আমরা উপজেলা প্রশাসক থেকে তাৎক্ষনিক তাদের লাশ দাফন করার জন্য ৫হাজার টাকা করে ১০ হাজার টাকা সহায়তা করেছি। আরও সহায়তা করা হবে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:

অনুরূপ সংবাদ

উপরে