আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > আন্তর্জাতিক > জি-২০ সম্মেলন: দ্বিতীয় দিনেও উত্তাল হামবুর্গ

জি-২০ সম্মেলন: দ্বিতীয় দিনেও উত্তাল হামবুর্গ

04554d09ce504bf2843a75f54af754c8_18প্রতিচ্ছবি ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক:

ট্রাম ও পুতিনের বৈঠকের পর হাজার হাজার বিক্ষোভকারী জার্মান শহরে পথে নেমে আসে।

দ্বিতীয় দিনের মত বিক্ষোভকারীরা আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছে। বিশ্বায়ন, জলবায়ু নীতি, আর পুঁজিবাদের বিরুদ্ধে তারা আন্দোলন করছে। রাস্তায় ব্যারিকেড দিয়ে স্থানে স্থানে আগুন ধরিয়ে দিয়ে আন্দোলনকারীরা। পুলিশ কর্মকর্তারা জানান, এখন পর্যন্ত প্রায় ১৭৬ জন কর্মকর্তা আহত হয়েছেন। ৮৩ জন বিক্ষোভকারীকে ঘটনাস্থল থেকে আটক এবং ১৯ জনকে আইনের আওতায় আনা হয়েছে।

এক পর্যায়ে জার্মানীর চ্যান্সেলর এঞ্জেলা মার্কেল বলেন, ‘ শান্তিপূর্ন বিক্ষোভের প্রতি আমার আস্থা আছে, তবে সহিংস বিক্ষোভ জীবনকে হুমকির মুখে ফেলছে।” জি-২০ তে অংশ নেয়া নেতৃবৃন্দ আন্দোলনকারীদের দমিয়ে তাদের নিরাপদে রাখার জন্য পুলিশের প্রসংশা করেছেন। তবে তারা এও বলেন যে, এর আগে আন্দোলনকারীরা কোন সম্মেলনের এত নিকটে অবস্থান করেনি। এই আন্দলনের সূত্রে জার্মানীতে অনেকগুলো বৈঠক বাতিল করা হয়েছে।

ctg-mthfএর আগে বৃহস্পতিবার (৬ জুলাই) মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও জার্মানির চ্যান্সেলর আঙ্গেলা মেরকেলের সাক্ষাতের এক ঘণ্টার মধ্যেই প্রায় ১২ হাজার বিক্ষোভকারী মুখোশ পরে জি-২০ সম্মেলন ভেন্যুর কাছেই বিক্ষোভ মিছিল শুরু করে। তারা ট্রাম্পকে ‘নরকে স্বাগত’ বলে স্লোগান দিতে দিতে এগোতে শুরু করলে পুলিশ লাঠিচার্জ শুরু করে। সেখানকার একটি ভবনে লিখেছে ‘জি-২০ কে আক্রমণ কর’।

বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ এক পর্যায়ে জলকামান ও পেপার স্প্রে করে। তখন বিক্ষোভকারীরা পুলিশের দিকে পানির বোতল, পাথর ও মশাল ছুড়ে পাল্টা জাবাব দেয়। পুলিশের দাবি, বিক্ষোভকারীরা বিভিন্ন স্থানে ব্যরিকেড দেয় এবং যানবাহনে আগুন ধরিয়ে দেয়।

সূত্র: আল জাজিরা

এন টি

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:

অনুরূপ সংবাদ

উপরে