আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > অপরাধ > ৬ ঘন্টার অভিযান শেষ, মেলেনি জঙ্গি আস্তানার খোঁজ

৬ ঘন্টার অভিযান শেষ, মেলেনি জঙ্গি আস্তানার খোঁজ

গাইবান্ধার চরে ফের জঙ্গি অভিযান গ্রেফতার ৬

প্রতিচ্ছবি প্রতিবেদক:

জঙ্গি আস্তানার খোঁজে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার দুর্গম চরাঞ্চলে অভিযান শেষ করেছে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। প্রায় সাড়ে ছয় ঘন্টার অভিযানে কোন জঙ্গি আস্তনার খোঁজ পাওয়া যায়নি । তবে ৬ জনকে আটক করা হয়েছে।

শনিবার রাত তিনটা থেকে শুরু হওয়া এই অভিযান শেষ হয়  রবিবার সকাল সাড়ে নয়টার দিকে। কাউন্টার টেররিজম ইউনিট, জেলা পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি), জেলা পুলিশ ও সুন্দরগঞ্জ থানা-পুলিশের প্রায় ৬০ জন সদস্য এই অভিযানে অংশ নেন।

পুলিশ সুত্রে যানা যায়, গ্রেপ্তার ছয় ব্যক্তির মধ্যে বিভিন্ন মামলার সাজাপ্রাপ্ত ও পরোয়ানাভুক্ত আসামি আছেন।

গাইবান্ধার সহকারী পুলিশ সুপার মো. আসাদুজ্জামান রিংকু জানান, ‘রাত তিনটার দিকে আমাদের এই অভিযান শুরু হয়। সাজাপ্রাপ্ত, পরোয়ানাভুক্ত, চিহ্নিত জুয়াড়িসহ মোট ছয়জনকে এখন পর্যন্ত গ্রেপ্তার করা হয়েছে।’

গ্রেফতাররা হলেন- সুন্দরগঞ্জ উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের মধ্যশিবরাম গ্রামের মৃত ভূষণ বৈরাগীর ছেলে চন্দন কুমার (২৭), শান্তিরাম ইউনিয়নের খামার পাঁচগাছী গ্রামের আব্দুর রহমানের ছেলে মো. আল-আমিন (২৫), তারাপুর ইউনিয়নের চরখোর্দা গ্রামের দীন মোহাম্মদের ছেলে মোস্তফা ওরফে মোস্তা (২২), একই গ্রামের মৃত আশরাফ আলীর ছেলে জাহাঙ্গীর আলম (২৫), রংপুরের পীরগাছা উপজেলার রহমতের চরের মো. আব্দুল মজিদের ছেলে লিটন মিয়া (১৯) এবং কুড়িগ্রাম জেলার রাজারহাট উপজেলার পীরমামুদপুর গ্রামের মৃত আব্দুল গফুরের ছেলে আলম মিয়া (২৮)।

জঙ্গি অভিযান শেষে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আব্দুল্লাহ আল ফারুক জানান , কোনো জঙ্গি আস্তানার সন্ধান পাওয়া যায়নি।

তিনি বলেন, ওয়ারেন্টভুক্ত ও নিয়মিত মামলার আসামি গ্রেপ্তার, নৌডাকাতি প্রতিরোধ, জঙ্গিদের তৎপরতা ও নাশকতা প্রতিরোধ এবং মানুষকে সচেতন করতে এই অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে।

সুন্দরগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ আতিয়ার রহমান বলেন, গ্রেফতারদের আদালতে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে।

প্রসঙ্গত,এর আগে গত বুধবার গাইবান্ধা সদর উপজেলার কামারজানি ও মোল্লারচর ইউনিয়নের কযেকটি চরে অভিযান চালিয়ে একজন ডাকাতকে আটক করা হয়। পরদিন বৃহস্পতিবার ফুলছড়ি উপজেলার এরেন্ডাবাড়ি, ফুলছড়ি ও ফজলুপুর ইউনিয়ন এবং গতকাল শনিবার সাঘাটা উপজেলার হলদিয়া ইউনিয়নের দুর্গম চরাঞ্চলগুলোর বিভিন্ন চরে অভিযানে কিছু পায়নি পুলিশ।

আর এইচ/এআর

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:

অনুরূপ সংবাদ

উপরে