আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > লাইফ-স্টাইল > সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

প্রতিচ্ছবি লাইফস্টাইল ডেস্ক:

এমন অনেক কিছু আছে, যেগুলো খুব নোংরা এবং সে কারণে জীবাণুতেও ভরা। প্রত্যেকটি জিনিসই পরিষ্কার রাখা দরকার। এসব স্পর্শ করার পর হাত না ধুলে বিপদ হতে পারে। জেনে নিন এমনই কয়েকটি বস্তু সম্পর্কে-

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

০১. টাকা

টাকার চেয়ে দরকারি অথচ বিপজ্জনক জিনিস পৃথিবীতে বোধহয় দ্বিতীয়টি নেই৷ বিপজ্জনক, কারণ, টাকা খুব দ্রুত হাতে হাতে বিভিন্ন স্থান, বিভিন্ন পরিবেশে ঘুরে বেড়ায়৷ কিন্তু টাকা তো পরিষ্কার করা যাবে না, তাই পরামর্শ- টাকা ধরার পরই হাত ধুয়ে ফেলুন এবং নিজের ডেবিটটি কার্ড ব্যবহার করে টাকার স্পর্শ যতটা সম্ভব এড়িয়ে চলুন৷

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

০২. স্মার্টফোন

ফোন, বিশেষ করে স্মার্টফোন ছাড়া এখন জীবনই যেন অচল৷ বিজ্ঞানীরা বলছেন, ব্যবহৃত স্মার্টফোন টয়লেটের চেয়েও নোংরা৷ কখনো কখনো নাকি টয়লেটের চেয়ে অন্তত দশগুণ ব্যাকটিরিয়া থাকে স্মার্টফোনে৷ হাফিংটন পোস্টের সাম্প্রতিক এক প্রতিবেদনেও বলা হয়েছে এই কথা৷ সুতরাং সবারই উচিত মোবাইলে অ্যান্টিব্যাকটিরিয়াল কোটিং ব্যবহার করা কিংবা প্রতিদিন অন্তত একবার ‘অ্যান্টিব্যাকটিরিয়াল ওয়াইপস’ দিয়ে মোবাইলটি পরিষ্কার করা৷

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

০৩. হেডসেট

হেডফোন বা হেডসেটের ব্যবহারও দিনদিন বাড়ছে৷ কিশোর-কিশোরী, তরুণ-তরুণীদের বড় একটা অংশই কানে এ ধরনের যন্ত্র লাগিয়ে গান শুনতে ভালোবাসে৷ অনেকে ফোনে কথাও বলে হেডফোন কানে গুঁজে৷ এই বস্তুটিতেও কিন্তু ব্যাকটিরিয়া গিজগিজ করে৷ সুতরাং তা নিয়মিত পরিষ্কার করা অত্যাবশ্যক৷ পুরোনো টুথব্রাশ দিয়ে প্রথমে বাইরের ধুলা বিদায় করে তারপর গরম পানিতে ভিজানো নরম কাপড় দিয়ে মুছে নিলেই এটি বেশ পরিষ্কার হয়ে যায়৷

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

০৪. কম্পিউটার কি-বোর্ড এবং মাউস

কাজ থামিয়ে এক্ষুনি আপনার কম্পিউটারের কি-বোর্ড আর মাউসটা একটু দেখুন৷ দু’টোতেই কত ময়লা জমেছে, তা খালিচোখেই বুঝতে পারছেন তো? বিজ্ঞানীরা বলছেন, টয়লেটের চেয়ে পাঁচগুণ ব্যাকটিরিয়া থাকে কি-বোর্ড এবং মাউসে৷ তাই ভ্যাকুয়াম ক্লিনারের পাইপের সামনের অংশটি খুলে পাইপটি ওপরে ধরে এগুলোর ভেতরের ধুলা পরিষ্কার করা যেতে পারে৷ তারপর অবশ্যই অ্যান্টিব্যাকটিরিয়াল ওয়াইপস দিয়ে কি-বোর্ড আর মাউস মুছে নেয়া উচিত৷

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

০৫. টুথব্রাশ

টুথব্রাশ দাঁত পরিষ্কার করে, কিন্তু টুথব্রাশ পরিষ্কার করে কে? আসলে খুব কম মানুষই টুথব্রাশ পরিষ্কার করে৷ অথচ টয়লেট থেকে জীবাণু সহজেই এতে আশ্রয় নিতে পারে বলে এটা পরিষ্কার রাখা আরো বেশি দরকার৷

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

০৬. গাড়ির স্টিয়ারিং

গাড়ির স্টিয়ারিংও প্রতিদিনই পরিষ্কার করা উচিত, কেননা, এটাও ব্যাকটিরিয়ার আদর্শ ‘বিচরণভূমি’৷

সবচেয়ে নোংরা ৭টি জিনিস

০৭. শপিং ব্যাগ

বারবার ব্যবহার করা যায় এমন শপিং ব্যাগগুলোও পরিষ্কার না করলে সেই ব্যাগে যখন যা কিনে আনবেন, তা-ই জীবাণুযুক্ত হবে৷ সুতরাং শপিং ব্যাগও নিয়মিত পরিষ্কার করুন৷

এআর

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

Leave a Reply

উপরে