আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > আন্তর্জাতিক > প্রমান যখন ভ্রূণ!

প্রমান যখন ভ্রূণ!

ধর্ষণ

প্রতিচ্ছবি আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

ভারতের মধ্য প্রদেশে সাত মাস আগে ছুরির মুখে ধর্ষিত হয়েছিল দলিত সম্প্রদায়ের একটি মেয়ে।

তখন এ অভিযোগ নিয়ে পুলিশের কাছে গেলেও  বিচারহীন অবস্থায় থানা থেকে ফিরে আসতে হয়েছিল মেয়েটিকে। কিন্তু একটা পর্যায়ে নিজেকে গর্ভবতী হিসেবে আবিষ্কার করে।

১৬ বছর বয়সী মেয়েটি গতকাল বাধ্য হয়ে মায়ের সঙ্গে একটা অটোরিক্সায় চড়ে হাসপাতারের উদ্দেশে। এর মধ্যেও ধর্ষক এবং তার সঙ্গীরা তাদের বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিল। তারা জোর করে তাদের নিয়ে যায় এক ডাক্তারের বাড়িতে। সেখানেই তার গর্ভপাত ঘটানো হয়।

মেয়েটি জানায়, ডাক্তার তার ভ্রূণটা একটা ব্যাগে করে দেন। দিয়ে বলেন, এটাকে রাস্তায় কোনো ডাস্টবিনে ফেলে দিতে। পরে তাদের ২০ রুপি দেওয়া হয় অটোতে ফিরতি পথ ধরতে। ধর্ষকের দল তাদের ভয়ভীতি দেখায় যে, ঘটনার জানাজানি হলেই খবর আছে।

কিন্তু ঘুরে দাঁড়ায় সাহসী দশম শ্রেণী পড়ুয়া মেয়েটি। ব্যাগটি নিয়ে মধ্য প্রদেশের পুলিশের কাছে যায় সে। নিরাজ পান্ডে নামের একজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছে। প্রমাণ আছে ব্যাগে।

সান্তার পুলিশ সুপার রাজেশ হিনগারকার বলেন, মেয়েটি যখন অভিযোগ করতে আসে তখন আমি অফিসে ছিলাম না। তবে তার অভিযোগ গ্রহণ করা হয়েছে।

জেএস

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

Leave a Reply

উপরে