আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > বিনোদন-সংস্কৃতি > হরিণ হত্যার দায়ে সালমানের জেল

হরিণ হত্যার দায়ে সালমানের জেল

 

সালমান খান

প্রতিচ্ছবি বিনোদন ডেস্ক:

কুখ্যাত ‘ব্ল্যাকবাক পোচিং কেস’-এ সালমান খানকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দেয় ভারতের আদালত। ১৯ বছরের পুরনো কৃষ্ণসার হরিণ হত্যা ও পাচার মামলায় এই রায় দেয় দেশটির আদালত।

জোধপুর আদালতের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট দেব কুমার খত্রী তাকে দোষী সাব্যস্ত করে এ রায় প্রদান করেন।

একই মামলার অন্য আসামিরা হলেন সাইফ আলী খান, সোনালী বেন্দ্রে, নীলম আর টাবু। নির্দোষ জানিয়ে আদালত এ মামলা থেকে তাঁদের অব্যাহতি প্রদান করেন। তবে, এ মামলায় সালমান এই বিশেষ আদালত থেকেই জামিন পেতে পারেন। তাই, তাঁকে জেলে না-ও যেতে হতে পারে।

এর আগে, ‘কৃষ্ণসার হরিণ হত্যা মামলায় মিথ্যা অভিযোগে সালমানকে ফাঁসানো হয়েছে’ বলে গত ৪ জানুয়ারি জোধপুর আদালতে দাবি করেন সালমান খানের আইনজীবী। সাক্ষীরা মিথ্যে বয়ান দিয়েছিলেন বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

উল্লেখ্য, ‘হাম সাথ সাথ হ্যায়’ ছবির শুটিং চলাকালে ১৯৯৮ সালের ১ অক্টোবর রাতে সালমান খান ২টি কৃষ্ণসার হরিণ শিকার করেন বলে অভিযোগ। বন্যপ্রাণী রক্ষা আইনের ৯/৫১ ধারায় এই বলিউড অভিনেতাকে দোষী সাব্যস্ত করেন আদালত। খাসাসপ্রাপ্ত পঞ্চম ব্যক্তির নাম দুশান্ত সিং, তিনি ওই এলাকারই বাসিন্দা।

উল্লেখ্য ১৯৯৮ সালে ‘হাম সাথ সাথ হ্যায়’ ছবির শুটিংয়ে গিয়ে জোধপুরে দুটি কৃষ্ণসার হরিণ হত্যার অভিযোগ ওঠে সালমান খান, সাইফ আলী খান, টাবু, সোনালি বেন্দ্রে ও নীলমের বিরুদ্ধে।

এএম/ জেএস

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

Leave a Reply

উপরে