আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > আন্তর্জাতিক > রাশিয়ার যুদ্ধবিরতি ঘোষণার পরও লড়াই থামেনি ঘৌতায়

রাশিয়ার যুদ্ধবিরতি ঘোষণার পরও লড়াই থামেনি ঘৌতায়

Strikes, clashes rock Syria's Ghouta despite 'pause'

প্রতিচ্ছবি আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

রাশিয়ার মানবিক যুদ্ধবিরতির নির্দেশের পরও লড়াই থামেনি ঘৌতায়। গতকাল মঙ্গলবার রাশিয়া প্রতিদিন পাঁচঘণ্টার মানবিক যুদ্ধবিরতির নির্দেশ দেয়। এই নির্দেশ উপেক্ষা করেই সিরিয়ার পূর্ব ঘৌতায় লড়াই চলছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ।

জেনেভায় এক সংবাদ সম্মেলনে জাতিসংঘের মানবিক ত্রাণ বিষয়ক মুখপাত্র জেন্স লারকি বলেন, “আজ সকালেও (মঙ্গলবার) আমরা পূর্ব ঘৌতায় লড়াই চলার খবর পেয়েছি। পরিষ্কারভাবেই চলমান পরিস্থিতিতে সেখানে ত্রাণ পাঠানো এবং অসুস্থদের উদ্ধার কাজ পরিচালনা করা সম্ভব নয়।”

যুক্তরাজ্য-ভিত্তিক পর্যবেক্ষক গোষ্ঠী ‘দ্য সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস’ বলেছে, যুদ্ধবিরতির সময়টিতেই পূর্ব ঘৌতার একটি শহরে হেলিকপ্টার থেকে দুইটি বোমা ফেলা হয়েছে এবং অন্য আরেকটি শহরেও জঙ্গিবিমান হামলা হয়েছে। তবে সিরিয়ার সামরিক বাহিনীর এক কর্মকর্তা বিমান হামলা চালানোর কথা অস্বীকার করেছেন।

সিরিয়ার ক্ষতিগ্রস্তদের নিকট ত্রাণ সহায়তা পৌঁছানো এবং অসুস্থ ও আহতদের সরিয়ে নিতে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ পূর্ব ঘৌতায় ৩০ দিনের যুদ্ধবিরতির একটি প্রস্তাব শনিবার অনুমোদন করেছিল। রোববার ফ্রান্স এবং জার্মানি যুদ্ধবিরতি বাস্তবায়নের জন্য সিরিয়া সরকারকে চাপ দিতে রাশিয়ার প্রতি আহ্বান জানায়।

এরপর সোমবার রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন পূর্ব ঘৌতায় প্রতিদিন ৫ ঘণ্টার জন্য মানবিক যুদ্ধবিরতি কার্যকরের নির্দেশ দেন।

রাশিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই শোইগু পুতিনের এ আদেশের কথা জানিয়ে এক ঘোষণায় বলেছিলেন, “প্রতিদিন স্থানীয় সময় সকাল ৯টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত যুদ্ধবিরতি চলবে।”

তবে সিরিয়া সরকার কিংবা তাদের অন্যান্য মিত্র বাহিনী ৫ ঘণ্টার এ যুদ্ধবিরতি মেনে চলতে রাজি হয়েছে কিনা তা নিয়ে কিছুই বলেননি শোইগু।

প্রসঙ্গত, গত ১০ দিনে ধরে বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত পূর্ব ঘৌতায় বিমান হামলা চালাচ্ছে সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদ বাহিনী। হামলায় এখন পর্যন্ত প্রায় সাড়ে পাঁচ শতাধিক মানুষ নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস’।

সূত্র: বিবিসি

জেএস

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

উপরে