আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > জাতীয় > আজ ফোর-জি’র যুগে প্রবেশ করবে বাংলাদেশ

আজ ফোর-জি’র যুগে প্রবেশ করবে বাংলাদেশ

ফোর-জি

প্রতিচ্ছবি প্রতিবেদক:

অবশেষে চতুর্থ প্রজন্মের নেটওয়ার্ক তথা ফোর-জি সোমবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) চালু হচ্ছে। এ দিন সন্ধ্যা ৭টায় রাজধানীর ঢাকা ক্লাবে ফোর-জি চালুর অনুমোদন পাওয়া গ্রামীণফোন, রবি, বাংলালিংক ও টেলিটকের শীর্ষ নির্বাহীদের হাতে লাইসেন্স তুলে দেওয়া হবে। লাইসেন্স পাওয়ার কয়েক মিনিটের মধ্যেই ফোর-জি চালু হবে বলে জানা গেছে।

লাইসেন্স হস্তান্তর অনুষ্ঠানে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন। টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিটিআরসির চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদও এ সময় উপস্থিত থাকবেন বলে জানা গেছে।

লাইসেন্স পাওয়ার পরপরই মোবাইলফোন অপারেটরগুলো ফোর-জি সেবা চালু করবে বলে ঘোষণা দিয়েছে।

গ্রামীণফোনের প্রধান নির্বাহী মাইকেল ফোলি আগেই জানিয়েছেন, তারা এক হাতে লাইসেন্স নেবেন, অন্য হাতে ফোর-জি চালু করবেন।

রবির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী মাহতাব উদ্দিন আহমেদ গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলেছেন, লাইসেন্স পাওয়ার কয়েক মিনিটের মধ্যে ফোর-জি সেবা চালু করবে রবি।

বাংলালিংককের প্রধান নির্বাহী এরিক অস গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলেছেন, সোমবার ফোর-জি সেবা চালুর জন্য আমরা আগ্রহের সঙ্গে অপেক্ষা করছি।
জানা গেছে, আনুষ্ঠানিকভাবে লাইসেন্স গ্রহণের পরপরই ফোর-জি সেবা চালু করবে বাংলালিংক। যদিও ১৩ ফেব্রুয়ারি তরঙ্গ নিলামের পরপরই অপারেটরটি জানিয়েছিল ২১ ফেব্রুয়ারি অপারেটরটি ফোর-জি চালু করবে। সে সময় লাইসেন্স হস্তান্তরের কথা ছিল ২০ ফেব্রুয়ারি। বিটিআরসি লাইসেন্স প্রদানের তারিখ একদিন এগিয়ে আনলে অপারেটরটিও তাদের আগের ঘোষণা থেকে সরে এসে লাইসেন্স গ্রহণের পরপরই ফোর-জি সেবা চালুর বিষয়টি ঘোষণা দেয়। অপারেটরটি ফোর-জি সেবা চালুর প্রথম দিনেই ঢাকা, চট্টগ্রাম, খুলনা ও সিলেটের বিশেষ কিছু এলাকায় এ সেবা চালু করবে।

রাষ্ট্রায়ত্ত মোবাইলফোন অপারেটরও যেকোনও সময় ফোর-জি সেবা চালু করবে বলে জানা গেছে। তবে একটি দায়িত্বশীল সূত্র জানাচ্ছে, ফোর-জি সেবা চালুর জন্য এখনও পুরোপুরি প্রস্তুত নয় টেলিটক। অবকাঠামো তৈরির কাজ এখনও শেষ হয়নি বলে জানা গেছে।

এসএম

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

উপরে