আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > আইন-মানবাধিকার > আইনজীবীর মাধ্যমে হাজিরা দিলেন খালেদা

আইনজীবীর মাধ্যমে হাজিরা দিলেন খালেদা

khaleda-bg_10272_10889

প্রতিচ্ছবি প্রতিবেদক:

বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া আইনজীবীর মাধ্যমে হাজিরা দিয়েছেন। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় ৫ বছরের দণ্ডপ্রাপ্ত হয়ে গত ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে কারাগারে রয়েছেন তিনি।

রোববার (১৮ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর বকশীবাজারে অবস্থিত ঢাকার ২ নম্বর বিশেষ জজ আদালতের বিচারক হোসনে আরা বেগমের আদালতে মামলাটির অভিযোগ গঠন শুনানির দিন ধার্য ছিল। এ মামলায় জামিনে থাকা খালেদা জিয়া আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া ও জিয়া উদ্দিন জিয়ার মাধ্যমে আজ হাজিরা প্রদান করেন। এছাড়া এ মামলায় আগে থেকেই আইনজীবীর মাধ্যমেই হাজিরা মঞ্জুর ছিল।

অপরদিকে একই মামলার আসামি ব্যারিস্টার আমিনুল হকের পক্ষে উচ্চ আদালতে স্থগিত থাকায় অভিযোগ গঠন পেছানোর সময়ের আবেদন করেন আইনজীবী। আদালত সময়ের আবেদন মঞ্জুর করে সকল আসামিকে আগামী ২৫ মার্চ আদালতে উপস্থিত হওয়ার নির্দেশ দেন।

খালেদা জিয়ার আইনজীবী জিয়া উদ্দিন জিয়া বলেন, এ মামলায় খালেদা জিয়া জামিনে রয়েছেন। আমরা আজ (রোববার) তার পক্ষে হাজিরা প্রদান করেছি। আদালত খালেদাসহ সকল আসামিকে আগামী ২৫ মার্চ আদালতে উপস্থিত থাকার নির্দেশ দিয়েছেন।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি উত্তোলন, ব্যবস্থাপনা ও রক্ষণাবেক্ষণে ঠিকাদার নিয়োগে অনিয়ম এবং রাষ্ট্রের ১৫৮ কোটি ৭১ লাখ টাকা ক্ষতি ও আত্মসাতের অভিযোগে ২০০৮ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি শাহবাগ থানায় মামলাটি করা হয়। ওই বছর ৫ অক্টোবর ১৬ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

উল্লেখ্য, গত ৮ ফেব্রুয়ারি দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসনকে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড দেন ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৫ এর বিচারক ড.আখতারুজ্জামান। এই মামলায় অন্য আসামি খালেদার বড় ছেলে তারেক রহমানকে ১০ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়।

আদালত বলেছেন, বয়স ও সামাজিক অবস্থা বিবেচনায় কম সাজা দেয়া হয়েছে সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীকে। রায়ের পরই নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কারাগারে নেয়া হয় বেগম জিয়াকে। দণ্ডবিধি ১০৯ ও ৪০৯ ধারায় খালেদা জিয়াসহ বাকিদের সাজা দেওয়া হয়। কারাদণ্ডের পাশাপাশি সব আসামিকে দুই কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার টাকা অর্থদণ্ড দেয়া হয়।

আর এইচ

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

উপরে