আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > বিনোদন-সংস্কৃতি > বিজ্ঞাপনে ওষুধের নাম উল্লেখ করায় বিপাকে বিদ্যা

বিজ্ঞাপনে ওষুধের নাম উল্লেখ করায় বিপাকে বিদ্যা

ওষুধের নাম উল্লেখ করায় বিপাকে বিদ্যা

প্রতিচ্ছবি বিনোদন ডেস্ক:

বছর শেষে ফুরফুরে মেজাজে রয়েছেন বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী বিদ্যা বালান। কারণ ধীরে ধীরে বক্স অফিসে গতি বাড়াচ্ছে তার অভিনীত ‘তুমহারি সুলু’ ছবিটি। সম্প্রতি কঙ্গনার পাশাপাশি স্ট্রার স্ক্রিন অ্যাওয়ার্ডের মঞ্চে সেরা অভিনেত্রীর শিরোপা জিতে নিয়েছেন তিনি।

যে ‘সুলু’ তাকে বহুদিন পর সাফল্যের মুখ দেখিয়েছে, সেই সুলুর অনস্ক্রিন কাণ্ডকারখানার জন্যই বিপাকে পড়লেন বিদ্যা বালান। জানা গেছে, ছবির ভিতরে কাশির ওষুধের বিজ্ঞাপন করার জন্য অভিনেত্রীকে নোটিস পাঠাতে চলেছে ফুড অ্যান্ড ড্রাগস অ্যাডমিনিস্ট্রেশন (FDA)।

টাইমস ইন্ডিয়া এক প্রতিবেদনে জানায়, আগেও টোরেক্স কফ সিরাপের বিজ্ঞাপনে দেখা গেছে বিদ্যাকে। ছবির মধ্যে একটি দৃশ্যে নাম উল্লেখ করে কাশির ওষুধটি ব্যবহার করা হয়। এতে বলা হয় যে, এই ওষুধ খেলে কাশি থেকে মুক্তি মিলবে। এ নিয়ে নতুন বিপাকে পড়তে যাচ্ছেন বিদ্যা।

জানা গেছে, বিজ্ঞাপনে বিদ্যা কাশির ওষুধের স্তুতি করেছেন বটে কিন্তু তার সঙ্গে এ কথা বলেননি যে, কেবলমাত্র ডাক্তারের পরামর্শেই ওষুধটি গ্রহণ করা উচিত। যে কোনো ওষুধের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া হতে পারে। তাই ওষুধ সবসময় ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী খাওয়া উচিত। আর এ বিষয়টি টোরেক্সের মতো কফ সিরাপের বিজ্ঞাপনে অবশ্যই তুলে ধরা উচিত।

একজন দায়িত্বশীল অভিনেত্রী হিসেবে বিদ্যার এ কথা মনে রাখা উচিত ছিল। উচিত ছিল ছবির প্রযোজক-পরিচালকদেরও। কিন্তু তা করা হয়নি। এ নিয়ে এফডিএ-তে অভিযোগ জানান ডা. তুষার জগতাপ নামে এক সমাজকর্মী। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে বিদ্যাকে নোটিস পাঠাতে চলেছে এফডিএ।

এসএম 

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

উপরে