আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > অপরাধ > বগুড়ায় বখাটের যন্ত্রণায় স্কুল ছাত্রীর আত্মহত্যা, আটক ২৬

বগুড়ায় বখাটের যন্ত্রণায় স্কুল ছাত্রীর আত্মহত্যা, আটক ২৬

রোজিফা আক্তার সাথী (১৪)

প্রতিচ্ছবি বগুড়া প্রতিনিধি:

বগুড়ার বখাটের যন্ত্রণায় রোজিফা আক্তার সাথী (১৪) নামে এক স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যার ঘটনায় অভিযুক্ত হুজাইফাকে আটক করতে গেলে সংর্ঘষের ঘটনা ঘটে। এসময় পুলিশের কয়েকজন সদস্য আহত হয়। পরে পুলিশের উপর হামলার অভিযোগে ২৬ জনকে আটক করা হয়েছে।

সোমবার সকালে আত্মহননকারি স্কুল ছাত্রীর লাশ ময়না তদন্তের জন্য পুলিশ বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্র জানায়, বগুড়ার দুপচাঁচিয়া উপজেলার জিয়ানগর মন্ডল পাড়ার ক্ষুদে ব্যবসায়ী গোলাম রব্বানীর মেয়ে সাথী জিয়ানগর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে ৯ম শ্রেনীর বিজ্ঞান বিভাগের এক রোলধারী ছাত্রীকে একই এলাকার আমিনুল মীরের ছেলে হুজাইফা ইয়ামিন দীর্ঘ দিন ধরে উত্ত্যক্ত করে আসছিলো। বিষয়টি ছেলের বাবা ও পরে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানকে জানালেও বখাটে ইয়ামিনের উত্ত্যক্ত করা থামেনি।

রবিবার সকালে সাথী দুপচাঁচিয়া উপজেলা সদরে প্রাইভেট পড়তে যায়। সেখান থেকে বাড়ি ফেরার পথে বখাটে ইয়ামিন আবার তার পিছু নেয় এবং উত্যক্ত করতে থাকে। এ ঘটনায় সাথী মানসিক ভাবে ভেঙ্গে পড়ে এবং বাড়ি ফেরার পর দুপুরে সে ফ্যানের সাথে গলায় ওড়না পেচিয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে। সন্ধ্যার আগে ঘটনাটি জানাজানি হলে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়।

পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।

বগুড়ার দুপচাঁচিয়া থানার ওসি আব্দুর রাজ্জাক জানান, যুবক ইয়ামিনকে আটক করতে গেলে আমিনুল মীরের লোকজনের হামলায় থানার এসআই আব্দুর রহিম, এস আই জাকির এবং এ এসআই হাফিজ আহত হয়। পরে অতিরিক্ত পুলিশ গিয়ে ওই এলাকায় অভিযান চালিয়ে পুলিশের ওপর হামলার ঘটনায় জড়িত অভিযোগে বখাটের আত্মীয়স্বজন সহ ২৬ জনকে আটক করে।

বগুড়ার দুপচাঁচিয়া থানার ওসি আব্দুর রাজ্জাক আরো জানিয়েছেন, স্কুল ছাত্রীকে উত্যক্ত ও আত্মহত্যা এবং পুলিশের ওপর হামলার ঘটনায় পৃথক দুটি মামলা হয়েছে।

আমজাদ হোসেন মিন্টু / আর এইচ

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

উপরে