আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > খেলাধুলা > আইসিসি-বিসিসিআই দ্বন্দ্বে টালমাটাল ক্রিকেট বিশ্ব

আইসিসি-বিসিসিআই দ্বন্দ্বে টালমাটাল ক্রিকেট বিশ্ব

আইসিসির সভায় কোনঠাসা বিসিসিআই। সমালোচনা আদালত নিযুক্ত বোর্ড প্রশাসকের। একদিকে ঘর শততরু বিভিষণ শশাঙ্ক মনোহর। আরেক দিকে শ্রীনিবাসন ঘনিষ্ঠদের নাছড় মনোভাব। এই দুই ফ্যাক্টরের কারণে আইসিসির বৈঠকে নাক কাটা গেল ভারতের। লভ্যাংশ ভাগাভাগি এবং পরিচালন সংক্রান্ত তৈরি শ্রীনিবাসন মডেলকে পাত্তাই দেওয়া হয়নি আইসিসির বৈঠকে। ফলে আইসিসিতে ভারতের কর্তৃত্ব নিয়ে প্রশ্ন উঠে গেছে। আদালত নিযুক্ত বোর্ডের পরিচালন কমিটির সদস্য বিনোদ রাই অভিযোগ করেছেন আইসিসির বৈঠকে যাওয়ার আগে শ্রীনিঘনিষ্ঠ কর্তারা তাঁদের সঙ্গে আলোচনা করেননি।

icc
বিশ্ব ক্রিকেটে সর্বাধিক অর্থ বিনিয়োগ করে ভারত। ক্রিকেটে প্রসারের ক্ষেত্রে বাণিজ্য ও বিপণনেও তারা অন্য যে কোন দেশের চেয়ে এগিয়ে। এ কারণে যে কোন দেশের চেয়ে সর্বাধিক লভ্যাংশও তারা দাবি করে আইসিসির কাছে। তবে দুবাইয়ে ওইদিন তাদের সেই প্রস্তাবটা নাকচ হয়ে গেছে ভোটাভুটিতে। ভোটাভুটির আগে  ৫৭ কোটি ডলার প্রাপ্তির আশা নিয়ে যাওয়া বিসিসিআই নতুন আর্থিক মডেলে পাচ্ছে শুধু ২৯ কোটি ৩০ লাখ মার্কিন ডলার। তবে সভা শেষে ভারতকে একটা সুসংবাদ দিয়েছেন আইসিসি সভাপতি শশাঙ্ক মনোহর। ভোটাভুটির আগে সমঝোতা প্রস্তাবটা গ্রহণ করার সুযোগ ভারতের জন্য খোলা রেখেছে আইসিসি। সে ক্ষেত্রে ভারতের ভাগে পড়বে আরও ১০ কোটি ডলার। তাতেো খুশি না বিসিসিআই। খেপেছেন সাবেকরা।

shanka-monohor

দুবাইয়ে  আইসিসির সাধারণ সভায় স্থায়ী ১০ সদস্য দেশের বোর্ড প্রতিনিধিদের ভোটের ৯টিই গেছে বিসিসিআই প্রস্তাবিত ‘তিন মোড়ল’র লভ্যাংশ নীতির বিপক্ষে। ভোটাভুটির ৯-১ ফলের পিঠে কেবল ভারতই এই প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দিয়েছে।
আইসিসিতে লভ্যাংশ বণ্টনের ক্ষেত্রে নিজেদের প্রস্তাব মুখ থুবড়ে পড়ায় ভারতের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি খেলা না খেলা নিয়ে নতুন জটিলতার উদ্ভব হয়েছে। টুর্নামেন্টে খেলতে না গেলে বিশ্বক্রিকেটের থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যেতে পারে দেশটি। এই শঙ্কা করছেন খোদ ভারতীয় বোর্ডের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা রাজীব শুক্লা। তিনি বলছেন, যা-ই ঘটুক না কেন চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি থেকে নাম প্রত্যাহার করা ঠিক হবে না। তাতে বিশ্ব ক্রিকেটে একঘরে হয়ে যেতে পারে ভারত।
‘দুবাইতে যা ঘটেছে, তা দুর্ভাগ্যজনক,’ মন্তব্য করে এএনআইকে শুক্লা বলেন, ‘আমরা যা চেয়েছিলাম সেটা পাইনি। আমাদের এখন ধৈর্য ধরতে হবে। কোনভাবেই বিশ্বক্রিকেট থেকে আলাদা হওয়া যাবে না।’
চুক্তি ভঙ্গের অভিযোগে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের বিরুদ্ধে মামলা করার হুমকি দিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড।আইসিসিতে পিসিবির প্রতিনিধি নাজম শেঠি হুমকি দিয়ে বলেছেন, চুক্তি থাকার পরও ভারত নানান অজুহাতে পাকিস্তানের সাথে খেলছেনা।
২০১৪ সালে দুই দেশের মধ্যে ক্রিকেট সিরিজ নিয়ে একটি সমঝোতা চুক্তি সাক্ষর হয়েছিল। সেই চুক্তির কোনো শর্ত ভারত পূরণ করেনি। বার বার চেষ্টা সত্ত্বেও নানা অজুহাতে পাকিস্তানের সঙ্গে কোনো ক্রিকেট সিরিজ খেলতে রাজি হচ্ছে না ভারত। এ কারণে বিসিসিআইয়ের বিপক্ষে পিসিবি কর্মকর্তার এই হুমকি।
আইসিসিতে নানা ইস্যু নিয়ে কোণঠাসা ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই। ক্রিকেট বিশ্বে বিসিসিআই’র ক্ষমতা অনেকখানিই কমে গেছে। এমন এক পরিস্থিতিতে সমঝোতা স্মারকের চুক্তি ভঙ্গের দায়ে বিসিসিআইয়ের বিপক্ষে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের হুমকিও  দিয়েছে পিসিবি।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

উপরে