আপনি আছেন
প্রচ্ছদ > খুলনা > দুর্ভোগ লাঘবে পুনঃনির্মাণ হচ্ছে মেহেরুল্লাহ সড়ক

দুর্ভোগ লাঘবে পুনঃনির্মাণ হচ্ছে মেহেরুল্লাহ সড়ক

jessore-road-drenপ্রতিচ্ছবি যশোর প্রতিনিধি:

যশোর শহরের ঈদগাহ মোড় থেকে পৌরসভা হয়ে রেজিস্ট্রি অফিস মোড় পর্যন্ত মুনশি মেহেরুল্লাহ সড়ক পুনঃনির্মাণ করা হচ্ছে।

১ কোটি ৮৫ লাখ ৬৪ হাজার ৩৫৯ টাকা ব্যয়ে এ সড়কে ৬৭৫ মিটার রাস্তা-ড্রেন ও ফুটপাত নির্মাণ হচ্ছে।

রাস্তা পুনঃনির্মাণের পাশাপাশি নির্মাণ হবে ড্রেন ও সুদৃশ্য ফুটপাত। শিক্ষার্থীসহ জনসাধারণের নিরাপদ চলাচলের জন্য এ ফুটপাত নির্মাণ করছে পৌরসভা। ইতোমধ্যে ড্রেন নির্মাণ কাজ শুরু হয়েছে।

যশোরের বেশ কয়েকটি সরকারি দফতরের অবস্থান শহরের মুনশি মেহেরুল্লাহ সড়কে (পৌরসভার সামনের রাস্তা)। সরকারি বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়, পৌরসভা, সিভিল সার্জন অফিস, পুলিশ সুপার ও সড়ক বিভাগের কার্যালয় এ সড়কে অবস্থিত।

এছাড়া রেড ক্রিসেন্ট, যশোর ক্লাব ও চারূপীঠ এ সড়কের পাশেই। আব্দুর রাজ্জাক মিউনিসিপাল কলেজ, প্রিপারেটরি স্কুল, মুসলিম একাডেমি স্কুল, মিশন স্কুল যেতে অনেক শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকরা সড়কটি ব্যবহার করেন।

তবে সড়কটি বেশির ভাগ সময় চলাচলের অনুপযোগী থাকায় স্কুলের শিক্ষার্থীসহ এখানকার বিভিন্ন দপ্তরে আসা মানুষদের দুর্ভোগ পোহাতে হয়। ড্রেনেজ ব্যবস্থাপনা না থাকায় বৃষ্টির দিনে সৃষ্ট জলাবদ্ধতায় সড়কটি দ্রুতই বিনষ্ট হয়ে যায়।

এ অবস্থার স্থায়ী সমাধানে সড়কটিতে প্রশস্ত ও ড্রেন নির্মাণ করছে যশোর পৌরসভা। ড্রেনের উপর দিয়ে চলাচলের জন্য নির্মাণ করা হবে ফুটপাত। সড়কটি পুনঃনির্মাণ করা হবে।

যশোর পৌরসভা সূত্রে জানা গেছে, ১ কোটি ৮৫ লাখ ৬৪ হাজার ৩৫৯ টাকা ব্যয়ে এ সড়কে ৬৭৫ মিটার রাস্তা-ড্রেন ও ফুটপাত নির্মাণ হচ্ছে। তৃতীয় নগর পরিচালন ও অবকাঠামো উন্নতীকরণ (সেক্টর)-ইউজিপ-৩ প্রকল্পের আওতায় চলমান প্রকল্পের মাধ্যমে এ কাজ সম্পন্ন্ হবে।

২০১৮ সালে পুরো কাজ সম্পন্ন হবে। ঈদগাহ মোড় থেকে শহীদ মশিয়ূর রহমান সড়কের রেজিস্ট্রি অফিস পর্যন্ত রাস্তা, ড্রেন ও ফুটপাত নির্মাণ হবে। যশোর পৌরসভার সহকারী প্রকৌশলী আহসান বারী বলেন, এই প্রথম রাস্তাটিতে ড্রেন ও ফুটপাত নির্মাণ করা হচ্ছে। এই সড়কটিতে দুটি স্কুল রয়েছে। স্কুল ছুটির পর শিক্ষার্থীরা যাতে নিরাপদে চলাচল করতে পারে, বিষয়টি বিবেচনায় ড্রেনের উপরে ফুটপাত নির্মাণ করা হবে। তিনি আরো বলেন, আগে সড়কটিতে কোন ড্রেন ছিল না। যে কারণে বৃষ্টির পানি জমে রাস্তা দ্রুতই নষ্ট হয়ে যেত। এখন ড্রেন নির্মাণ হলে পানি জমে রাস্তা নষ্ট হবে না।

সাজেদ রহমান / আর এইচ

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন:
symphony

অনুরূপ সংবাদ

উপরে